শনিবার২২শে জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ১৬ই জিলহজ, ১৪৪৫ হিজরি৮ই আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ফরিদগন্জের মানুষের দূঃখ কস্টের সাথী জনপ্রিয় নেত্রী রীনা নাসরিন

মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান রীনা নাসরিন ।ফাইল ছবি

নিজস্ব প্রতিবেদক-চাঁদপুর ফরিদগঞ্জ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে নারীদের জন্য নির্ধারিত (সংরক্ষিত মহিলা) ভাইস চেয়ারম্যান পদে সম্ভাব্য প্রার্থীরা প্রস্তুত হচ্ছেন ভোটের লড়াইয়ে উত্তীর্ণ হওয়ার জন্যে। বিভিন্ন সভা সমাবেশে উপস্থিতির মধ্যে দিয়ে তাদের প্রার্থীতার বিষয়টি জানান দিচ্ছেন।

সংরক্ষিত মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে প্রার্থীতা নিয়ে কথা হয় ফরিদগন্জ এলাকার বিভিন্ন নেতাকর্মী ও ভোটারদের সাথে ।
কথা বলে জানা গেছে এবার যে কয়জন মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী রয়েছেন তার মধ্য সবার পরিচিত মুখ রিনা নাসরিন। জেলার ফরিদগন্জ উপজেলার বতমান মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান। ফরিদগন্জে এক জনপ্রিয় নেত্রী। একজন কর্মঠ, দক্ষ ও জনপ্রিয় নেত্রী। এলাকায় শান্তি ও অগ্রযাত্রাকে এগিয়ে নিতে তার বিকল্প নেই। এমনটাই মনে করেন ফরিদগন্জ উপজেলার বেশি র ভাগ সাধারন মানুষ। বিশেষ করে নারী ভোটাররা তাকে খুব পচন্দ করেন।

আসন্ন ফরিদগন্জ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে মহিলা ভাইস-চেয়ারম্যান পদে পুনরায় প্রার্থী।তিনি বাংলাদেশ আ:লীগের নৌকা প্রতিকের মনোনয়ন প্রত্যাশী।
খোজ নিয়ে জানা যায় দীর্ঘদিন ধরে তিনি নেতাকর্মীদের সাথে নিবিড় যোগাযোগ রেখে চলেছেন। প্রায় সময়ই তিনি উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়নের নেতাকর্মীদের সাথে সাক্ষাৎ করেন।গ্রামে গ্রামে ঘুরে ঘুরে পুরুষ মহিলা সকলের মন জয় করতে এলাকার উন্নয়ন করা, পারিবারিক এবং সামাজিক বিভিন্ন সমস্যার সমাধানের চেষ্টা করে চলেছেন তিনি

উপজেলা আওয়ামী লীগের মহিলা বিষয়ক সম্পাদক রীনা নাসরিন তৃতীয়বারের মতো ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী হবেন। তিনি ফরিদগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের মহিলা বিষয়ক সম্পাদক। ২০০৯ সালে উপজেলা নির্বাচনে অংশগ্রহণ করে তিনি ১২৬ ভোটের ব্যবধানে বিএনপি সমর্থিত প্রার্থীর কাছে পরাজিত হন। কিন্তু ২০১৪ সালে আওয়ামী লীগের সমর্থন নিয়ে বিপল ভোটের ব্যাবধানে ভাইস চেয়ারম্যান (সংরক্ষিত) পদে বিজয়ী হন।

তিনি বলেন, ‘আওয়ামী লীগের রাজনীতি করি। কিন্তু আমি দল তথা ফরিদগন্জ এলাকার মানুষের দূঃখ কস্টের সাথী । অতীতে দলের জন্য কাজ করতে গিয়ে অনেক নিযাতিত হয়েছি। তাই দল যদি আমাকে পনরায় সমর্থন দেয় তাহলে ভাইস চেয়ারম্যান পদে আবারো প্রার্থী হবো। আবার নিবাচিত হলে অতীতের মতো এলাকার মানুষের সেবক হয়ে কাজ করবো।মেয়েদের অধিকার আদায়ে আমি অগ্রনী ভূমিকা পালন করবো।উপজেলাকে ডিজিটাল উপজেলা রুপান্তরে অংশীদারীত্বে কাজ করবো।অসহায় নির্যাতিত অবহেলিত নারীদের পাশে দাড়িয়ে কাজ করারও অঙ্গীকার ব্যাক্ত করেন তিনি।

আশা করি জয়ী হব ইনসাল্লাহ । জনগনের ভালোবাসা ধরে রাখতে পারবো। এ জন্যে সকলের দোয়া ও সহযোগীতা চাই।