শনিবার২২শে জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ১৬ই জিলহজ, ১৪৪৫ হিজরি৮ই আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

শিক্ষকের নেতৃত্বে ওসির মোটরসাইকেল চুরি!

ছবি-সংগৃহীত।

বাংলা সংবাদ২৪ ডেক্স– গত ১৯ মে দুপুরে কুড়িগ্রামের ভূরুঙ্গামারী থানার ওসি (তদন্ত) জাহিদুল ইসলামের কলেজ রোডস্থ বাসার সামনে থেকে পালসার ১৫০ সিসি হোন্ডা হারিয়ে যায়। হোন্ডা হারানোর পর স্থানীয়ভাবে ইমেজ সংকটে পরে পুলিশ।

হোন্ডা উদ্ধারকে চ্যালেঞ্জ হিসাবে নিয়ে তারা মাঠে নামে। আর সেই মোটরসাইকেল উদ্ধার করতে গিয়ে পুলিশ খোঁজ পেয়েছে আন্তঃবিভাগ চোর সিন্ডিকেট দলের। যার নেতৃত্বে একজন স্কুল শিক্ষক রয়েছেন বলে জানায় পুলিশ।
এক পর্যায়ে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে নাগেশ্বরী উপজেলার দক্ষিণ ব্যাপারীরহাট গ্রামের হবিবর মেম্বারের ছেলে রেজাউল হাসান আব্দুল বারেককে (৩০) আটক করে। পরে তার স্বীকারোক্তিতে রংপুরের মডার্ন এলাকায় ইসমাইল হোসেনের বাড়ি থেকে গত বুধবার রাতে মোটরসাইকেলটি উদ্ধার করে।

পুলিশ জানিয়েছেন, বারেক মোটরসাইকেলটি চুরি করে নাগেশ্বরী উপজেলার কুটি পয়ড়াডাঙ্গা হাই স্কুলের সহকারী শিক্ষক রফিকুল ইসলামের নিকট জমা দেয়। রফিকুলের কাজ হচ্ছে চোরাই মোটরসাইকেল কিনে তা বিক্রি করা। পরে বিক্রিত অর্থ ভাগাভাগি করে নেয় তারা। রফিকুল ইসলাম মোটরসাইকেলটি বিক্রি করে রংপুরের মিঠাপুকুর উপজেলার ইসমাইল হোসেনের কাছে।

এই ইসমাইল বিআরটিএর এক শ্রেণির অসাধু কর্মকর্তার যোগসাজশে রেজি: নম্বর ও টেম্পারিং করে গাড়ির বডি নং পরিবর্তন করে নতুন নম্বর ও বডি নং ব্যবহার করে সাধারণ মানুষের কাছে বিক্রি করে।

ভূরুঙ্গামারী থানার ওসি ইমতিয়াজ কবির জানান, এরা রংপুর আন্তঃবিভাগ মোটরসাইকেল চোর সিন্ডিকেট দলের সক্রিয় সদস্য।