মঙ্গলবার১৬ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ১০ই মহর্‌রম, ১৪৪৬ হিজরি১লা শ্রাবণ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

মেঘনায় নিষিদ্ধ জালে মাছ ধরায়

চাঁদপুরে ১৫ জেলের অর্থদণ্ড

মেঘনা নদীর পাড়ে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেন ইউএনও পূর্বিতা চাকমা।

চাঁদপুরের হাইমচর উপজেলার মেঘনা নদীতে কারেন্টজালসহ অন্যান্য নিষিদ্ধ জালে মাছ ধরায় আটক ১৫ জেলেকে ৩০ হাজার টাকা অর্থদণ্ড দিয়েছে ভ্রাম্যমাণ আদালত “

আজ শুক্রবার (২৩ ফেব্রুয়ারি) বিকেলে উপজেলার নীলকমল পুলিশ ফাঁড়ি সংলগ্ন মেঘনা নদীর পাড়ে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) পূর্বিতা চাকমা। “

;অর্থদণ্ডপ্রাপ্ত জেলেরা হলেন- খোরশেদ (৩৮), মো. সোহাগ (৩২), মো. রাছেল (২৯), রিয়াদ মিজি (২৭), মো. মোহন মীর (২১), মো. শাওন (২০), মো. শান্ত মোল্লা (১৯), মো. বাবু (২০), মো. রাজিব বেপারী (৩০), মো. হৃদয় মীর (২৫), সেলিম মীর (৫০), মো. রুবেল (৩৫), মো. রিয়াদ (২৫), সোহাগ খান (৩০) ও আবু বকর বেপারী (৫০)।”

;অভিযানে অংশগ্রহণকারী হাইমচর উপজেলা জ্যেষ্ঠ মৎস্য কর্মকর্তা (অতিরিক্ত দায়িত্ব) মো. মাহবুব রশীদ জানান, কম্বিং অপারেশনের চতুর্থ ধাপের দ্বিতীয় দিন আজ বেলা সাড়ে ১১টা হতে বিকেল সাড়ে ৪টা পর্যন্ত মেঘনা নদীর চরভৈরবী এলাকায় উপজেলা টাস্ক ফোর্স যৌথ অভিযান পরিচালনা করে। এ সময় ৩০ হাজার মিটার কারেন্ট জাল, একটি চরঘেরা জাল জব্দ করা হয়।”

নিষিদ্ধ ঘন ফাঁসের জাল দিয়ে ১০০ কেজি জাটকা, চেউয়া মাছের একটি ব্রুড স্টক এবং অন্যান্য প্রজাতির মাছ আহরণরত অবস্থায় ১৫ জেলেকে হাতেনাতে আটক করা হয়।”

আটকৃত ১৫ জেলেকে ভ্রাম্যমাণ আদালতে ৩০ হাজার টাকা জরিমানা আদায় করা হয়। জব্দকৃত জাল উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার উপস্থিতিতে আগুনে পুড়িয়ে বিনষ্ট এবং জব্দকৃত মাছ স্থানীয় দুস্থদের মাঝে বিতরণ করা হয়।;