সোমবার১৫ই এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ৬ই শাওয়াল, ১৪৪৫ হিজরি২রা বৈশাখ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

অনেক বলেছি, এবার রুখে দাঁড়াতে হবেবে: ফখরুল

১২ দলীয় জোট আয়োজিত ইফতার ও দোয়া মাহফিল কথা বলেন মির্জা ফখরুল

বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন-এই সরকার এমনভাবে কথা বলে যেন এ দেশের চেয়ে বেশি গণতন্ত্র আর কোথায় নেই। আর কথা বলে লাভ নেই; কথা অনেক বলেছি, এবার রুখে দাঁড়াতে হবে। এই সরকারের বিরুদ্ধে প্রতিরোধ গড়ে তুলতে হবে।”

;আজ (বুধবার) মালিবাগ স্কাই সিটিতে ১২ দলীয় জোট আয়োজিত ইফতার ও দোয়া মাহফিল পূর্ব সংক্ষিপ্ত আলোচনা সভায় এ কথা বলেন মির্জা ফখরুল।উপস্থিত বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের নেতাদের উদ্দেশে বিএনপি মহাসচিব বলেন-এদের (সরকার) যত সময় দেবেন, এরা ততো বেশি জাতির ক্ষতি করবে। এরা সবচেয়ে বড় ক্ষতি করেছে আমাদের গণতন্ত্রকে ধ্বংস করে দিয়েছে, সংবিধানকে ধ্বংস করেছে, ভোটাধিকার হরণ করেছে, বিচার বিভাগকে দলীয়করণ করেছে। এদের কাছে কেউ নিরাপদ নয়।”

;মির্জা ফখরুল বলেন-এই সরকার নীতি-নৈতিকতাকে বিসর্জন দিয়ে, সংবিধানকে লঙ্ঘন করে, মানুষের অধিকার কেড়ে নিয়ে বেআইনি কাজ করে যাচ্ছে। মঙ্গলবার কুমিল্লায় বিএনপির ইফতার-মাহফিলের সময় পুলিশ হামলা চালায় এবং ২৫ জন নেতাকর্মীকে গ্রেপ্তার করে নিয়ে যায়।”

;আজ সকালে নরসিংদী জেলা কমিটির সভায়ও পুলিশের উপস্থিতিতে আওয়ামী সন্ত্রাসীরা হামলা চালায়। এর আগে একইভাবে নাটোর, খুলনাসহ সারাদেশে বিএনপির সভায়, ইফতার মাহফিলে হামলা চালানো হচ্ছে।বঙ্গবাজারের আগুন লাগার ঘটনা প্রসঙ্গ টেনে বিএনপি মহাসচিব বলেন, ‘আমরা ইফতারে যারা অংশগ্রহণ করেছি, সবার মন ভারাক্রান্ত। বঙ্গবাজারে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ড হয়েছে, হাজার হাজার মানুষ নিঃস্ব হয়ে গেছে। তাদের আহাজারি এখন সারাদেশের মানুষকে ভারাক্রান্ত করেছে।”

;জাতীয় পার্টির (কাজী জাফর) চেয়ারম্যান মোস্তফা জামাল হায়দারের সভাপতিত্বে ও জাতীয় দলের চেয়ারম্যান সৈয়দ এহসানুল হুদার পরিচালনায় ইফতারে আরও অংশ নেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য মির্জা আব্বাস, নজরুল ইসলাম খান, সেলিমা রহমান, ভাইস চেয়ারম্যান আব্দুল্লাহ আল নোমান, চেয়ারপারসনের বিশেষ সহকারী শামসুর রহমান শিমুল বিশ্বাস, বিএনপি নেতা সৈয়দ এমরান সালেহ প্রিন্স, শামা ওবায়েদ, হাবিবুর রশিদ হাবিব, জামায়াত নেতা ও দেলোয়ার হোসেন সাঈদীর ছেলে শামীম বিন সাঈদী, জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দলের (জেএসডি) সভাপতি আ স ম রব, বাংলাদেশ কল্যাণ পার্টির চেয়ারম্যান মেজর জেনারেল (অব.) সৈয়দ মুহাম্মদ ইবরাহিম, নাগরিক ঐক্যের সভাপতি মাহমুদুর রহমান মান্না, এনপিপি চেয়ারম্যান ড. ফরিদুজ্জামান ফরহাদ, বাংলাদেশ এলডিপি শাহাদাত হোসেন সেলিম, গণঅধিকার পরিষদের সদস্যসচিব নুরুল হক নুর, জাগপার ব্যারিস্টার তাসমিয়া প্রধান, ইসলামী ঐক্যজোটের রকিব হোসেন প্রমুখ।,